এই সাইটের কোন লেখা কপি করা নিষেধ

কিভাবে জীবন পাতায় ফলোয়ার বাড়াবেন?

জীবন পাতায় যারা নিয়মিত মেম্বার আছেন তারা জানেন প্রতিটা ফলোয়ার কতটা মূল্যবান। ফলোয়ার বাড়ানোর জন্য মেম্বাররা নানাভাবে চেষ্টা করে থাকে। কিভাবে সেই ফলোয়ার বাড়ানো যায়, সহজ কি কি উপায় আছে চলুন জেনে নেই।

  • অনলাইনে থাকা: জীবন পাতায় যখনই কেউ নতুন মেম্বার হয় তখন বাই ডিফল্ট 20 জন মেম্বার কে ফলো করে আর এই ফলো টা করে সর্বশেষ অনলাইনে থাকা 20 জন মেম্বারকে। তাই আপনি যত বেশি অনলাইনে থাকবেন তত বেশি ফলোয়ার পাবেন কোন চেষ্টা ছাড়াই।
  • অন্যদের ফলো করা: কেননা আপনি যখন অন্য কাউকে ফলো করবেন তখন তার কাছে নোটিফিকেশন যাবে যে আপনি তাকে ফলো করেছেন তখন সেও আপনাকে ফলো ব্যাক দিবে। বিশেষ করে অনলাইনে থাকা মেম্বারদের অথবা পোস্ট করা মেম্বারদের। সার্চ পেজে আপনি অনলাইনে থাকা মেম্বারদের খুঁজে পাবেন।
  • অন্যদের প্রোফাইল ভিজিট করা: আপনি যখন অন্যদের প্রোফাইল ভিজিট করবেন তখন তার কাছে নোটিফিকেশন যাবে যে আপনি তার প্রোফাইলে ভিজিট করেছেন তখন সেও কৌতুহলী হয়ে আপনার প্রোফাইল ভিজিট করবে আর আপনার প্রোফাইল যদি তার ভালো লাগে সে অবশ্যই আপনাকে ফলো করবে।
  • আর্টিকেল লেখা: আর্টিকেল ব্লগে দেখা যায় তাই সাইটের প্রত্যেকটা মেম্বার ব্লগে আপনার আর্টিকেল দেখতে পাবে ফলে বেশি মানুষের কাছে আপনার প্রোফাইলটি পৌঁছাবে তাই ফলো পাওয়ার সম্ভাবনাও বাড়বে। এটি দীর্ঘমেয়াদি ফলোয়ার পাওয়ার একটি উপায়।আপনি যদি খুব ভালো, মজাদার অথবা মানুষ খুব পছন্দ করবে এরকম বিষয় নিয়ে আর্টিকেল লেখেন এবং আর্টিকেলের শেষে যদি সবাইকে অনুরোধ করেন যে আমার আর্টিকেলটি ভালো লাগলে শেয়ার করবেন তাহলে আপনার কোন না কোন আর্টিকেল ভাইরাল হবে। অথবা আপনি যদি ইউনিক আর্টিকেল লেখেন অর্থাৎ নিজ থেকে লিখেছেন এবং কিওয়ার্ড গুলো সুন্দর মত দিতে পারেন এমনও হতে পারে যে আপনার আর্টিকেলটি গুগল সার্চে পেয়েছে তখনো এটা বেশি মানুষের কাছে পৌঁছাবে ফলে আপনি বেশি ফলোয়ার পাবেন।
  • প্রডাক্ট পোস্ট করা: আপনি যদি আপনার প্রোফাইলে একটি ছবি আপলোড করেন অথবা কিছু লিখে পোস্ট দেন তাহলে এটা শুধুমাত্র আপনাকে যারা ফলো করে তারা দেখবে কিন্তু আপনি যদি আর্টিকেল লেখেন অথবা জীবন পাতা মার্কেটে যদি একটি প্রোডাক্ট আপলোড দেন তাহলে এটা জীবন পাতা’র সকল মেম্বার দেখবে। ফলে আপনি অনেক বেশি মানুষের কাছে পৌছাবেন এবং ফলোয়ার ও বেশি পাবেন। এছাড়া আপনার পোস্টকৃত প্রোডাক্টটি যদি কারো ভালো লাগে সে প্রোডাক্টটি কেনার জন্য অর্ডার করবে সেখান থেকে আপনি বাড়তি টাকা আয় করবেন। টপ টেন মেম্বারের একজন হচ্ছে সোহাগ ভূঁইয়া। তার প্রোফাইলে গেলে দেখবেন সে শুধুমাত্র কম্পিউটার বা কম্পিউটার এক্সেসরিজ প্রোডাক্ট আপলোড করে। কোন ব্যক্তিগত অথবা কোন বেহুদা পোস্ট নেই। শুধু প্রোডাক্ট আপলোড করেই সেট টপ টেন মেম্বার এ জায়গা করে নিয়েছে।
  • নতুনদের সহযোগিতা করা: আপনি সার্চ পেজে খেয়াল রাখবেন কারা অনলাইনে আছে। তাদের প্রোফাইল ভিজিট করলে সহজেই বুঝতে পারবেন কারা নতুন। তাদেরকে সহযোগিতা করলে জীবন পাতার বিষয়টি বুঝিয়ে বলতে পারলে সহজেই তাদের হৃদয়ে জায়গা করে নিবেন। তাদের সাথে যেমন ভালো রিলেশন তৈরি হলো তেমনি কৃতজ্ঞতাস্বরূপ তারা অবশ্যই আপনাকে ফলো করবে।
  • অন্যদের পোস্টে লাইক কমেন্ট করা: অন্যদের কে লাইক কমেন্ট করলে একটি ভার্চুয়াল রিলেশন তৈরি হয় তখন কৃতজ্ঞতা স্বরূপ তারাও আপনাকে ফলো করবে। এমনকি যেই লোকটি আপনাকে ফলো করেনি তার পোস্টে ও যখন লাইক কমেন্ট করবেন একটা সময় সেও আপনাকে ফলো করবে। আপনি এমন কাউকে লাইক কমেন্ট করলেন যে আপনার ফলো তে আছে অথবা আপনি তার ফলো তে আসেন তখন তার সকল বন্ধুরা আপনার কমেন্ট দেখতে পাবে আপনার লাইক দেখতে পাবে তখন তারাও আপনাকে ফলো করবে অর্থাৎ বন্ধুদের বন্ধুরা।
  • টপ মেম্বার পেজে জায়গা করে নেওয়া: একবার যদি টপ 100 মেম্বার এর তালিকায় আসতে পারেন তাহলে অতিরিক্ত কিছু ফলোয়ার এমনিতেই পাবেন কেননা টপ 100 মেম্বারের প্রায় সবাই নিয়মিত অনলাইনে থাকেন নতুন মেম্বার খুব দ্রুত তার রেঙ্ক পাওয়ার জন্য প্রথম টপ 100 জনকে ফলো করে ফেলে এই আশায় যে তারা অন্তত আমাকে ফলো ব্যাক দিবে এতে করে আপনার ফলোয়ার খুব দ্রুত বাড়তে থাকবে।
  • বিজ্ঞাপন করা: বিজ্ঞাপন হচ্ছে সবচেয়ে শক্তিশালী মাধ্যম জীবন পাতার সকল মেম্বার এর কাছে পৌঁছে যাওয়ার। যখন আপনি বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে প্রতিনিয়ত জীবন পাতা’র সকল মেম্বার এর কাছে পৌঁছে যাচ্ছেন তখন তাদের মধ্যে অনেকেই আপনাকে ফলো করবে। এখন এই বিজ্ঞাপনটা যত আকর্ষণীয় হবে যত মেম্বারদেরকে আকর্ষণ করবে তত আপনি বেশি ফল পাবেন।এখন আপনার বিজ্ঞাপন যদি হয় এমন যে আমাকে ফলো করুন আমিও ফলো ব্যাক দিবো এটি একটি দুর্বল বিজ্ঞাপন। আপনি এমন বিজ্ঞাপন দিতে পারেন যে লোকটি ভাববে যে এই লোকটা খুব উপকারী তাকে আমার পরে দরকার হবে। ফলো টা তার প্রয়োজন এই করবে এবং খুব জরুরী মনে করে করবে। কি সেই বিজ্ঞাপন? সেটা আপনাকেই ভেবে বের করতে হবে। আমি শুধু একটি উদাহরণ দিতে পারি। যেমন আপনি লিখলেন, “আপনি কি নতুন অনলাইনে আয় করতে চান তাহলে আমি আপনাকে ফ্রী গাইডলাইন দিব”। এখন বলুন অনলাইনে আয় কে না করতে চায় আর যদি পাওয়া যায় ফ্রী গাইডলাইন তাহলে তো কোন কথাই নেই তখন দেখবেন আপনার এই বিজ্ঞাপনটি 10 জন দেখলে 9 জনই আপনাকে ফলো করবে। জীবনপাতায় লাইক কমেন্ট করে তো ফ্রী ডলার পাচ্ছেনই। সেই ডলার দিয়েই আপনি বিজ্ঞাপন করতে পারবেন।

এই ছিল ফলোয়ার বাড়ানোর কার্যকরী কিছু টিপস।আপনার যদি কোন কার্যকরী টিপস জানা থাকে তাহলে কমেন্টে লিখুন সেটা পোস্টে এড করে দেওয়া হবে। ভালো থাকবেন পোস্টটি ভালো হলে শেয়ার করতে ভুলবেন না। জীবন পাতার সকল মেম্বার এর কাছে পুষ্টি পৌঁছে দিতে সহযোগিতা করুন।

[review]

Comments (No)

Leave a Reply