আপনি কি জানেন? হ্যাকাররা কেন VPNব্যবহার করে?

যদি উত্তর হয়: না। তবে এই পোষ্টটি আপনার জন্যই।
আবারও আপনাকে স্বাগত আমার নতুন একটা পোষ্টে। আশা করি ভালোই আছেন।
শুরুতে বলতে হয় VPN টা কি?

VPN হলো Virtual Private Network.
কি? কিছু বুঋলেন? একটু তো বুঋতেই পারছেন। Private মানে নিজেস্ব ব্যপার, তাই না?
VPN এর কথা বলতে গেলে প্রথমেই চলে আসে IP Address এটা সম্পর্কে অনেকে জানেন।
যারা জানেন না তাদের একদম সহজ করে বলতে গেলে IP Address হলো আপনার ফোন বা কম্পিউটারের একটা ঠিকানা। IP adress টা কয়েকটা সংখ্যার হয়। 01.124.0.210 এরকম। প্রত্যেক ফোন বা কম্পিউটারে একটা IP adress থাকে। আর এটা দিয়ে জানা যায় আপনার ফোন বা কম্পিউটার এর বতর্মান অবস্খা , এখন আপনি কোথায় আছেন ইত্যাদি।
আর এই VPN এর কাজ হলো আপনার IP address পরিবর্তন করা।

তো এখন বলতে পারেন IP Adress পরিবর্তন করে লাভ কি?
হ্যাঁ আপনার কোনো লাভ না হলেও হ্যাকারদের অনেক লাভ। আপনারও লাভ আছে পরে বলছি।
তো ধরেন আপনি একজন হ্যাকার আপনি আপনার বাসা থেকে বাংলাদেশ বা যেকোনো দেশের ব্যাংক হ্যাক করে টাকা উঠালেন। তো এখন ব্যংক কর্তৃপক্ষ যদি আপনার কম্পিউটার ট্র্যাক করে জানতে পারে আপনি ওখানে বসে হ্যাকিং করছেন তাহলে তো সহজেই আপনাকে ধরে ফেলবে। তাই আপনি যদি VPN ব্যবহার লোকেশন অামেরিকা দিয়ে হ্যাকিং করেন। তাহলে আপনি নিরাপদে হ্যাকিং করতে পারবেন।

এখন বলি আপনার কি লাভঃ
প্রথমত আপনি নিরাপদে ডাটা আদান প্রদান করতে পারবেন।
VPN দিয়ে অাপনি ISP তে (ISP হলো “ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার”। যা আপনাকে ইন্টারনেটের সাথে সংযোগ করে দিবে ) ব্লক করা সাইটে ভিজিট করতে পারবেন। যেমন ধরুন বাংলাদেশে facebook বন্ধ করে দেয়া হলো। আপনি এখন VPN দিয়ে Facebook ব্যবহার করতে পারবেন।
জনপ্রিয় কিছু ফ্রি VPN এর নাম: Turbo VPN, Opera fee VPN, Super VPN, Hi VPN ইত্যাদি।
উপরের কথাগুলো অনেক কঠিন ভাবেও বলা যেত তবে অনেকে বুঋতো না তাই একদম সহজ করেই বললাম।

এরকম আরোও জানতে “এসো আয় করি” নিয়মিত ভিজিট করুন।
ধন্যবাদ সবাইকে।

Comments (No)

Leave a Reply